আল জামি'আতুল আরাবিয়া দারুল হিদায়াহ-পোরশা

যদি কোন স্বামী তার স্ত্রীকে তিন তালাক দেয়, তাহলে তার হুকুম কি? এবং যদি বাচ্চা থাকে তাহলে তাদের হুকুম কি?

বরাবর,

ফতোয়া বিভাগ

পোরশা বড় মাদ্রাসা,নওগাঁ।

বিষয়: তালাক সম্পর্কে ইসলামী বিধান।

      প্রশ্ন: মাননীয় মুফতি সাহেব হুজুর, যদি কোন স্বামী তার স্ত্রীকে তিন তালাক দেয়, তাহলে তার হুকুম কি? এবং যদি বাচ্চা থাকে তাহলে তাদের হুকুম কি?


بسم الله الرحمن الرحيم ، حامداومصليا

সমাধান : যদি কোন স্বামী তার স্ত্রীকে তিন তালাক দেয়, তাহলে ইসলামী শরীয়ত ও চার মাযহাবের সকল ইমামগণের ঐক্যমত অনুসারে তিন তালাক কার্যকর হয়ে, তাদের বৈবাহিক সম্পর্ক সম্পূর্ণরূপে ছিন্ন হয়ে যাবে এবং একে অপরের জন্য সম্পূর্ণরূপে হারাম হয়ে যাবে। যদি তাদের সন্তান থাকে তাহলেও তিন তালাক কার্যকর হবে। কেননা সন্তান তালাক কার্যকর হওয়ার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধক নয়।

      তিন তালাক দেওয়ার পর স্বামীর জন্য ওই স্ত্রীকে ফিরিয়ে নেওয়ার স্বাভাবিক কোনো পদ্ধতি নেই। তবে তারা যদি পুনরায় একসঙ্গে ঘর-সংসার করতে চায়, তাহলে তার স্ত্রী তালাকের ইদ্দত শেষ করার পর অর্থাৎ তার স্ত্রীর ঋতুমতি হলে তিনটি ঋতু আর গর্ভবতী হলে সন্তান প্রসব হওয়ার পর স্বেচ্ছায় অন্যত্র বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারবে । যদি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয় এবং দ্বিতীয় স্বামী সহবাস করার পর কোন কারণে তালাক দেয় বা মারা যায় , তাহলে তার ইদ্দত অতিবাহিত হওয়ার পর স্ত্রী রাযী থাকলে তারা নতুন ভাবে দুজন সাক্ষীর উপস্থিতিতে মোর ধার্য করে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারবেন।

        উল্লেখ্য, শরীয়তের দৃষ্টিতে তালাক খুবই অপছন্দনীয় ও গর্হিত কাজ । তাই এ ব্যাপারে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত । অতি প্রয়োজন ছাড়া তা প্রয়োগ করা কিছুতেই বাঞ্ছনীয় নয়। যদি কখনো তালাক দিতেই হয় তাহলে পরামর্শ অনুযায়ী এক তালাকের বেশি দেওয়া উচিত নয়। তাও শান্ত পরিবেশে আগের পরিবেশে নয়।

الإحالة الشرعية علي المطلوب

——————————————————————————————-قوله تعالي في”سورةالبقرة”(٢٣٠)فان طلقها فلا تحل له من بعد حتي تنكح زوجا غيره***

اخرج الإمام البخاري في ” الصحيح”(5066) و قال الليث عن نافع كان ابن عمر رضي الله عنهما إذا سئل عمن طلق ثلاثا قال لو طلقت مرة او مرتين فإن النبي عليه السلام امرنيبهذا  فإن طلقها ثلاثا حرمت حتي تنكح زوجا غيره

*———————————-وفي”الهدايه”(٢/٣٩٩)ان كان الطلاق ثلاثا في الحرة اوثنتين في الامة لم تحل له حتي تنكح زوجا غيره نكاحا صحيحا ويدخل بها ثم يطلقها او يموت عنها

*———————وفي”التاتارخانية”(٤/٤٢٩)رجل،قال لامراته انت طالق انت طالق انت طالق وقال عنيت بلا ولي الطلاق والثانية والثالثت افهامها صدق ديانة وفيالقضاء طلقت ثلاث

وفي”الهندية”(١/٣٥٥) ان كان الطلاق ثلاثا في الحرة اوثنتين في الامة لم تحل له حتي تنكح زوجا غيره نكاحا صحيحا ويدخل بها ثم يطلقها او يطلقها او يموت عنها –إنتهى،والله أعلم صواب ۔۔

ফতোয়া প্রদান করেছেনঃ

মুফতী আব্দুল আলিম সাহেব ( দা.বা)

নায়েবে মুফতী , ফতোয়া বিভাগ, আল জামিয়া আল আরাবিয়া দারুল হিদায়াহ- পোরশা,নওগা।

দাতা সদস্য নিবন্ধন করুন

মাদরাসার চলমান উন্নয়ন মূলক কাজে আপনার দানের হাত বাড়িয়ে দিন। 
প্রকল্প নামঃ পাঠাগার নির্মাণ (দারুল মুতালা'আ)
প্রকল্প ব্যয়ঃ ১,৫০,০০,০০০ (এক কোটি পঞ্চাশ লক্ষ) টাকা

সদস্য ফরম পূরণ করুন

 

 


কল করেও দাতা ফরম পূরণ করতে পারেন

মুফতি. মোস্তাফিজুর রহমান সাহেব
শিক্ষা সচিব – দারুল হিদায়াহ
মোবাইল নংঃ ০১৭১৪-১১৪৬৯৩

This will close in 10 seconds

Scroll to Top